Skip to content

গোটা ভারতের ভবিষ্যৎ বদলাতে এবার মাঠে নামছে টাটা গ্রুপ, বাজার কাঁপাতে আসছে

    ভারতের সবথেকে বিশ্বাসযোগ্য সবচেয়ে ধনী ক্ষমতাবান ব্যবসায়ী হলেন রতন টাটা (Ratan Tata)। তার টাটা কোম্পানি ভারতের অন্যতম কোম্পানিগুলোর মধ্যে একটি। ভারতের যাবতীয় গুরুত্বপূর্ন সমস্ত কিছুই রয়েছে রতন টাটার অধীনে। তবে এবারে একটি বিদেশী কোম্পানির সঙ্গে মিলিত হয়ে রতন টাটা (Ratan Tata) ভারতবর্ষে একটি নতুন ব্যাটারি কোম্পানি আনতে চলেছে। নিঃসন্দেহে সকলেই এ সিদ্ধান্তকে খুব বড় এবং ভালো সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। সকলেই আশা করছে এ সিদ্ধান্তের মাধ্যমেই ভারত তার প্রতিবেশী দেশ চীনকে অনেকটাই টক্কর দিতে পারবে। সারা পৃথিবীতে ব্যাটারির মার্কেটে চীনের যে অধিপত্য ছিল, এবার ভারতে সেই বাজারের হাল ধরতে চলেছেন টাটা।

    Ratan tata

    গত বুধবারেই টাটা গ্রুপের চেয়ারম্যান চন্দ্রশেখর বাবু জানিয়েছেন, বৈদ্যুতিক গাড়ি তৈরি করার বিষয়ে টাটা স্কাই বেশি জোর দিতে চাইছে। এই গ্রুপ সমস্ত ব্যবসায়ী এবার এক নতুন ধরনের পরিবর্তন আনতে চলেছে। তারই মধ্যে অন্যতম হল ব্রিটিশ বিলাসবহুল ইউনিট জাগুয়ার ল্যান্ড রোভার এবং টাটা মোটরস। শোনা যাচ্ছে, পরবর্তীকালে গোটা ব্যাটারি কোম্পানি ভারতবর্ষে রপ্তানি করতে শুরু করবে।

    টাটা মোটরস হলে ভারতের সবচেয়ে বৃহত্তম বৈদ্যুতিক গাড়ি নির্মাতা। 2025 মধ্যেই তারা বেশ কয়েকটি মডেল লঞ্চ করার পরিকল্পনা করেছে। ইলেকট্রনিক মারফত অনুযায়ী ২০৩০ সালে সমস্ত লাইনআপ জুড়ে গিয়ে ই-মডেল শুরু করা হবে।

    Ratan tata

    এছাড়াও চেয়ারম্যান আরো কথা জানিয়েছেন। তার মতে, প্রত্যেক কোম্পানির উপরে চাপ বাড়ছে কারণ জলবায়ু পরিবর্তনের সাথে সাথে মানুষের জীবন ধারার পরিবর্তন ঘটছে। খুব শীঘ্রই টাটা গ্রুপ ঘোষণা করতে চলেছে কার্বন নিরপেক্ষ হবার। যে  ব্যাটারীতে ষ্টোরেজ সমাধান, পুনর্নবীকরণযোগ্য শক্তি এবং হাইড্রোজেন বর্তমান রয়েছে, সেগুলোর প্রতি অর্থ বিনিয়োগ করে বৃহৎ পরিকল্পনার অংশ হতে চলেছে।

    See also  এশিয়ার ৭ টি সেরা বিশ্ববিদ্যালয় যেখানে পড়া যে কোন ছাত্রের স্বপ্ন!তালিকায় রয়েছে বাংলার এই বিশ্ববিদ্যালয়