জনপ্রিয়তার শীর্ষে থাকলেও হঠাৎ কেন আদানি-আম্বানির থেকে পিছিয়ে পড়লেন রতন টাটা

সম্প্রতি ধন সম্পদের দিক থেকে অন্যান্য শিল্পপতিদের তুলনায় দিনে দিনে পিছিয়ে পড়ছেন রতন টাটা। বস্তুত দেশের শিল্পপতিদের তালিকায় একসময় তালিকার সবথেকে উপরে বিরাজমান রতন টাটার অস্তিত্ব বর্তমানে কিছুটা ফিকে হয়ে পড়েছে। তবে ধনসম্পত্তির দিক থেকে তিনি কিছুটা পিছিয়ে পড়লেও, দেশের সাধারণ মানুষের আশীর্বাদ ও ভালোবাসা যে সর্বদা তার সঙ্গে রয়েছে এ বিষয়ে কোনো সন্দেহ নেই।

Ratan Tata

সময়ের সঙ্গে সঙ্গে সবকিছু বদলায়। একসময় শিল্পপতিদের মধ্যে শীর্ষে থাকা রতন টাটা আজ অন্যান্য শিল্পপতিদের থেকে বেশ কিছুটা পিছিয়ে পড়েছেন। তাকে টপকে এগিয়ে যাচ্ছে মুকেশ আম্বানি (Mukesh Ambani), গৌতম আদানিরা (Gautam Adani)। সম্প্রতি IIFL- এর তরফ থেকে প্রকাশিত ভারতের Wealth Hurun India Rich List-এ অনেকটাই পিছিয়ে রয়েছে রতন টাটা। আর তাকে ফেলে এগিয়ে গিয়েছে মুকেশ আম্বানি, গৌতম আদানি।

রতন টাটা

এখানেই শেষ নয়, এমনকি গোটা বিশ্বের শিল্পপতিদের তালিকায়, তাঁর স্থান হয়েছে ৪৩৩ নম্বরে। তার আগে এই তালিকায় থাকা ৪৩২ জনের মধ্যে বেশ কয়েকজন ভারতীয়ও রয়েছেন। এই বিষয়ে ডক্টর শশাঙ্ক শাহ তার লেখা বই “From Torchbearers to Trailblazers”- এ বলেছেন- জাতীয় ও আন্তর্জাতিক স্তরে অতিধনীদের তাদের কোম্পানিতে একটা বিরাট অংশের স্টকের অংশীদারিত্ব থাকে। যা টাটার ক্ষেত্রে দেখা যায়নি।

এ ব্যাপারে বলে রাখা ভালো, সম্প্রতি রতন টাটার মোট অর্থের পরিমাণ হল ৩৫০০ কোটি টাকা। গত বছর যে অর্থের পরিমাণ ছিল প্রায় ৬০০০ কোটি টাকা। অর্থাৎ এক বছরে তার সম্পত্তি প্রায় ২৫০০ কোটি টাকা লোপ পেয়েছে। কিন্তু দেশে টাটার যথেষ্ট চাহিদা রয়েছে এবং এ কোম্পানির শেয়ারও বেড়ে চলেছে। কিভাবে টাটা এতটা পিছিয়ে গেল, সেটা অবশ্য জানা যায় নি।