Skip to content

ভুলে যান ঊর্ধ্বমুখী পেট্রোল-ডিজেলের দাম! এবার জলেই চলবে গাড়ি, অসম্ভবকে সম্ভব করার চ্যালেঞ্জ গডকড়ীর

    Nitin gadkari

    বিনা পেট্রোল-ডিজেলেই চলবে গাড়ি। পরিবেশ হবে দূষণমুক্ত। এমনই গাড়ি কিনলেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিতীন গডকড়ী। তিনি কিনেছেন গ্রীন হাইড্রোজেন চালিত একটি গাড়ি। যাতে লাগবে না পেট্রল অথবা ডিজেল এবং গাড়িটি সম্পূর্ণ পরিবেশ বান্ধব। শুধু নিজে কেনা নয়, সকল দেশবাসীর সাথে এই গাড়ি ব্যবহার করতে পারে সেই পরিকল্পনা করছেন।

    H2 car

    আর্থিক অন্তর্ভুক্তি সংক্রান্ত ষষ্ঠ জাতীয় শীর্ষ সম্মেলনে নিতীন গডকড়ী বলেন, “গ্রিন হাইড্রোজেন চালিত এই গাড়িটি দিল্লীর রাস্তায় চালিয়ে মানুষকে দেখাব যে জল থেকে হাইড্রোজেন পাওয়া একেবারেই অসম্ভব কিছু নয়।” তিনি আরো বলেন সবই নির্ভর করছে প্রযুক্তির উপর। সাত বছর আগে শুধুমাত্র প্রযুক্তি ব্যবহার করে নর্দমার জল কে মহারাষ্ট্র সরকারের পাওয়ার প্ল্যান্ট এ বিক্রি করা হয়েছিল। এর ফলে সরকারের প্রায় 350 কোটি টাকা আয় হয়।

    Green hydrogen car

    বর্তমানে দেশের বিকাশ থেকে শুরু করে সকল কিছুই নির্ভর করছে উন্নত প্রযুক্তির উপর।বর্তমান সময়ে প্রতিটি পৌরসভায় বর্জ্য জলে মূল্য বাড়ানোর কাজ চলছে। আমরাও যাতে বর্জ্য বা সৌর শক্তি থেকে সস্তায় বিদ্যুৎ উৎপাদন অর্থাৎ গ্রিন হাইড্রোজেন উৎপাদন করতে পারি, সেই কারণে মানুষকে প্রশিক্ষণ দিতে হবে। এই গ্রীন হাইড্রোজেন জ্বালানি ব্যবহার করে ট্রাক, বাস, গাড়ি যে কোনো যানবাহন চালানো যাবে।

     

    কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নিতীন গডকড়ী নিজে একটি গ্রিন হাইড্রোজেন চালিত গাড়ি কিনেছেন। এই গাড়ি এর প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ” আমি একটি গ্রিন হাইড্রোজেন চালিত গাড়ি কিনেছি।আর সেটি দিল্লীর রাস্তায় চালাবো। মানুষকে দেখিয়ে দেব জল থেকে হাইড্রোজেন পাওয়া একেবারেই অসম্ভব কিছু নয়। এটি করার জন্য শুধুমাত্র ধারণার বিকাশ প্রয়োজন।শহরগুলির নিকাশী জল এবং আবর্জনা ব্যবহার করে জ্বালানী তৈরি করে, গ্রিন হাইড্রোজেন ব্যবহার করে বাস, ট্রাক এবং গাড়ি চালানোর পরিকল্পনাও রয়েছে আমার। আসা করছি খুব শীঘ্রই এই বিষয়ে সফলতা অর্জন করতে সক্ষম হব।”

    See also  নুসরাতের থেকেও বহুগুণ সুন্দরী তার বোন নুজহাত, সৌন্দর্যের দিক থেকে টেক্কা দেবে বলিউড অভিনেত্রীদের