আবহাওয়া খবর: দক্ষিণবঙ্গের সাত’টি জেলাতে ভারী বৃষ্টিপাতের সতর্কতা, নামবে তাপমাত্রার পারদ

রাজ্যে উত্তরে হাওয়া প্রবেশ করার সাথে সাথেই আবহাওয়া উলোটফের হলো। দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন জায়গায় হালকা থেকে ভারী বৃষ্টি শুরু হয়েছে। তবে উত্তরবঙ্গে বৃষ্টিপাতের সেরকম কোন পূর্বাভাস নেই। রাজ্যে আগামী দিনের আবহাওয়া কি রকম থাকবে চলেছে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

আবহাওয়া

•উত্তরবঙ্গের আবহাওয়া

আবহাওয়া দপ্তর জানিয়েছে আগামী 15 নভেম্বর পর্যন্ত উত্তরবঙ্গে মালদহ ছাড়া বাকি সমস্ত রাজ্যের আবহাওয়া শুষ্ক থাকবে। মালদা তে হালকা মাঝারি বৃষ্টিপাত হতে পারে। এই বৃষ্টিপাতের ফলে তাপমাত্রার হেরফের হতে পারে। তাছাড়া উত্তরবঙ্গের অন্যান্য রাজ্যগুলিতে আবহাওয়া সামান্য থাকবে।

•দক্ষিণবঙ্গের আবহাওয়া

উত্তরবঙ্গে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা না থাকলেও দক্ষিণবঙ্গের আবহাওয়া সম্পূর্ণ উল্টো। 15 নভেম্বর পর্যন্ত দক্ষিণবঙ্গের প্রায় সকল জেলাতেই মাঝারি থেকে ভারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। সাথে বজ্রপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান, পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, ঝারগ্রাম, বীরভূম,নদীয়া জেলাগুলিতে রবিবার নাগাদ ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে। এবং সোমবার থেকে বৃষ্টিপাত ধীরে ধীরে কমবে বলে জানানো হয়েছে। তবে তাপমাত্রার বিশেষ কোনো হেরফের হবে না। তবে বৃষ্টিপাত কমে যাওয়ার পর তাপমাত্রা যথেষ্ট কমতে পারে। 2° থেকে 4° ডিগ্রি পর্যন্ত পারদ নিচে নামতে পারে।

Weather

•শহর কলকাতার আবহাওয়া।

আগামী 24 ঘণ্টায় কলকাতা সহ আশেপাশের এলাকায় আকাশ সাধারনত মেঘলা থাকবে। বজ্রবিদ্যুৎ সহ মাঝারি বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকবে 27 °C এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা 23° C এর আশে পাশে থাকবে।

উত্তর ও দক্ষিণবঙ্গের বিভিন্ন রাজ্যের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা

আসানসোল (30.6°C)
বাঁকুড়া (28.2°C)
বর্ধমান (31°C)
পানাগড় (28.7°C)
পুরুলিয়া (30.3°C)
বালুরঘাট (28.8°C)
ব্যারাকপুর (29.8°C)
বহরমপুর (28.2°C)
ক্যানিং (31°C)
দার্জিলিং (16.6°C)
দিঘা (31°C)
কলকাতা (30.8°C)
কোচবিহার (32.3°C)
মালদহ (30.7°C)
শ্রীনিকেতন (28.8°C)
শিলিগুড়ি (29.9°C)

() 👈 এ আগের দিনের তাপমাত্রা দেখানো হলো

•ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা আন্দামান সাগরে।

আন্দামান সাগর এবং সংলগ্ন থাইল্যান্ড উপকূলে একটি গভীর নিম্নচাপ সৃষ্টি হয়েছে। আবহাওয়া দপ্তরের খবর অনুযায়ী, এই নিম্নচাপটি ক্রমে ক্রমেই পশ্চিম-উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হবে। এই নিম্নচাপ টির শক্তি বাড়বে 15 নভেম্বর এবং ধীরে ধীরে বেড়ে 18 নভেম্বর এ সর্বোচ্চ শক্তি নিয়ে অন্ধ্র উপকূলে আছড়ে পড়বে। তাছাড়াও উত্তর তামিলনাড়ুর উপরে আরো একটি নিম্নচাপ অবস্থান করছে। অক্ষরেখা অন্ধ্র – ওড়িশা উপকূল থেকে পশ্চিমবঙ্গের দিক পর্যন্ত বিস্তৃত হয়েছে। এর ফলে পশ্চিমবঙ্গের দক্ষিণ অংশে বিভিন্ন রাজ্যে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। কেরল, দক্ষিণ ওড়িশা, তামিলনাড়ু, ও আন্দামান নিকোবর এ আগামী কয়েক সপ্তাহ ধরে ভারী বৃষ্টি এর পূর্বাভাস দিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর।