Skip to content

গাছ কাটা নিষেধ, তাই বৃক্ষকেই ৪ তলা বাড়ি বানিয়ে ফেললেন ব্যাক্তি

    মানব সভ্যতার উন্নয়ন সময়ের সাথে সাথে যতই এগিয়ে চলেছে পরিবেশের ভারসাম্য ততই নষ্ট হচ্ছে। নির্বিচারে কাটা হচ্ছে গাছ, দ্রুত হারে হচ্ছে নগরায়ন, অথবা কেউ নিজের স্বপ্নের বাড়ি তৈরি করার ক্ষেত্রেও গাছ কাটছে। মানুষ নিজের চাহিদা পূরণের জন্য একদিকে যেমন গাছ কেটে চলেছে অন্যদিকে সম্পূর্ণ অন্য দৃষ্টান্ত প্রতিষ্ঠা করেছেন এক ব্যক্তি।

    Tree HOUSE

    87 বছরের পুরনো একটি আম গাছকে না কেটেই বাড়ি তৈরি করেছেন এক ব্যক্তি। ওই ব্যক্তি গাছ ও বাড়ির এক অপরূপ মেলবন্ধনে তৈরি করেছেন বাড়িটিকে। গাছ প্রেমি সেই মহান মানুষটি হলেন রাজস্থানের হ্রদের শহর উদয়পুরের বাসিন্দা কেপি সিংহ। কেপি সিংহ পেশায় একজন ইঞ্জিনিয়ার। তিনি চারতলা একটি বাড়ি নির্মাণ করেছেন সেই আম গাছের সাথে সামঞ্জস্য রেখে না কেটেই।

    Tree HOUSE

    বাড়িটি গাছের উপরে তৈরি করা হয়েছে এবং এই বাড়িটি চারতলা। আশেপাশের মানুষজন বাড়িটিকে ‘ট্রি হাউস’ নামে চেনেন। বাড়িটি 2000 সালে বানানো হয়েছে। অর্থাৎ দীর্ঘ 22 বছর ধরে কেপি সিংহ এর এই বাড়িটি গাছের ওপর টিকে রয়েছে।আপনার মনে প্রশ্ন উঠতে পারে বাড়িটি তাহলে কে ডিজাইন করেছেন? বাড়ি ডিজাইন করেছেন স্বয়ং কেপি সিংহ।

    Tree HOUSE

    গাছের এক একটি ডালপালা নিখুঁত কাজে ব্যবহার করেছেন তিনি। কোন ডালপালা দিয়ে বানিয়েছেন সোফা, আবার একটি ডাল দিয়ে টিভি স্ট্যান্ড। শুধু তাই নয়, গাছটির একটি ডাল দিয়ে টেবিল হিসেবে ব্যবহার করেছেন। একটি আদর্শ বাড়িতে যা যা থাকা উচিত যেমন বাথরুম, বেডরুম, রান্নাঘর এবং ডাইনিং হল সব কিছুই রয়েছে এই বাড়িটিতে। সাধারণ বাড়িঘর যেমন সিমেন্ট ইট পাথর দিয়ে তৈরি এই বাড়িটি কিন্তু সেরকম ভাবে তৈরি করা হয় নি।

    See also  খননকার্য করে ১৮০০ বছর পুরোনো রহস্যময় শহরের হদিস পেল প্রত্নতাত্ত্বিকরা, বেরিয়ে এল আশ্চর্যজনক তথ্য!

    Tree HOUSE

    বাড়িটি তৈরি করা হয়েছে সেলুলার , স্টিল স্ট্রাকচার এবং ফাইবার সিট দিয়ে। এই বাড়িটির সিড়ি গুলি রিমোট দ্বারা পরিচালিত হয়। বাড়ি টি মাটি থেকে 9 ফুট উচু থেকে শুরু হয়েছে। বাড়িটির উচ্চতা 40 ফুট। বহু পর্যটক প্রতিদিনই বাড়িটিকে বিভিন্ন জায়গা থেকে দেখতে আসেন।