Skip to content

বাজারে বাড়ছে ৫০০ টাকার জাল নোট! কিভাবে করবেন আসল-নকলের মধ্যে পার্থক্য

    বাজারে নতুন ৫০০ টাকার নোট আসার পর থেকেই এর সংখ্যা বেড়েই চলেছে। রিজার্ভ ব্যাংকের তরফ থেকে দেওয়া রিপোর্ট অনুযায়ী জানা যাচ্ছে অন্যান্য আর্থিক বছরের তুলনায় চলতি আর্থিক বছরে 500 টাকার নোটের সংখ্যা অনেক বেশি। আর এর সাথে সাথে জাল নোটের সংখ্যা অনেকাংশে বৃদ্ধি পেয়েছে। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া এর রিপোর্ট বলছে বর্তমানে জাল নোটের সংখ্যা প্রায় 31.3% হয়েছে। 5 বছর আগে হত 2016 সালের 8 নভেম্বর প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির রাত আটটার সময় দেশবাসীর উদ্দেশ্যে ঘোষণা করেন যে 500 টাকা এবং 1000 টাকার নোট বাতিল করা হচ্ছে।

    প্রধানত কালোবাজারি রুখতে এবং অসাধু মানুষদের বিশাল পরিমাণে সঞ্চিত কালোটাকা (black money )বাজেয়াপ্ত করার জন্যই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল। তারপর বাজারে আসে নতুন 500 টাকার নোট। সরকার তরফ থেকে জানানো হয় এই 500 টাকার নোট জাল করা যাবে না। কিন্তু বর্তমানের এই 500 টাকার নোট ও জাল হয়ে গেছে। বাজারে প্রচুর পরিমাণে 500 টাকার জাল নোট ঘুরে বেড়াচ্ছে। এবার প্রশ্ন আসতে পারে যে কিভাবে আপনি বুঝবেন আসল 500 টাকার নোট ও কোনটি জাল বা নকল 500 টাকার নোট? আপনি কিভাবে দুটির তফাৎ বুজবেন আসুন বিস্তারিত জানা যাক।

    500

    ৫০০

    • আসল ৫০০ টাকার নোটে ৫০০ সংখ্যাটি দেবনাগরী হরফে লেখা থাকে।
    • নকল 500 টাকার নোট টিকে আলোয় ধরলে 500 লেখাটি আলোয় স্পষ্ট দেখা যাবে।
    •মহাত্মা গান্ধীর ছবির অবস্থান পুরনো নোটের থেকে অনেকটাই ভিন্ন।
    •লাল কেল্লার অবস্থান নোটের পিছনের দিকে।
    •নোটের পিছনের বাঁদিকে রয়েছে ‘স্বচ্ছ ভারতে’ এর লোগো।
    •মহাত্মা গান্ধীর ছবির ডান পাশে রয়েছে প্রতিশ্রুতির বয়ান সহ গভর্নরের স্বাক্ষর, গ্যারান্টি ক্লজ, এবং RBI এর লোগো।

    See also  জনপ্রিয় অভিনেত্রী রচনা ব্যানার্জি আসল নাম কী? কেন গোপন করেন নিজের আসল পরিচয়?