Skip to content

চাপ বাড়তে চলেছে Jio সংস্থার, ভারতে ইন্টারনেট ব্যবসা শুরুর করার জন্য আবেদন এলন মাস্কের

    পত্বরি বিশ্বের সবচেয়ে ধনী ব্যক্তি হলেন এলন মাস্ক। শুধু পৃথিবীতে নয় মহাকাশেও রাজ করছেন তিনি। এলন মাস্ক এর সংস্থা স্টারলিঙ্ক (Starlink) আমাদের দেশ অর্থাৎ ভারতবর্ষে ইন্টারনেট পরিষেবা শুরু করতে চাইছে। এর ফলে দেশ তথা এশিয়ার সবচেয়ে ধনী ব্যক্তি মুকেশ আম্বানি চিন্তিত। কারণ এলন মাস্ক যদি ভারতবর্ষে ইন্টারনেট পরিষেবা চালু করে তাহলে সরাসরি রিলায়েন্স জিও অর্থাৎ প্রত্যক্ষভাবে মুকেশ আম্বানি কে টেক্কা দেবে তা সন্দেহ নেই।

    Elon musk

    কিছুদিন আগে কেন্দ্র এক বিজ্ঞপ্তি জারি করে বলেছে যে এখনো স্টারলিঙ্ক সংস্থাকে দেশে ইন্টারনেট পরিষেবা চালু করার লাইসেন্স প্রদান করা হয়নি। তাই দেশবাসীকে ওই সংস্থার সাবস্ক্রিপশন নিতে বন্ধ করা হচ্ছে। এই বিজ্ঞপ্তি দেখে এলন মাস্ক ভারতের কাছে লাইসেন্স পাওয়ার জন্য উঠে পড়ে লেগেছেন।

    উক্ত প্রসঙ্গে স্টারলিঙ্ক সংস্থার ভারত শাখার ডিরেক্টর সঞ্জয় ভার্গব জানিয়েছেন, ”আমাদের আশা, কোনও বড়সড় বাধার সম্মুখীন না হলে আগামী বছরের 31 জানুয়ারির মধ্যেই আমরা বাণিজ্যিক লাইসেন্স পেয়ে যাব। অনুমতি না পেলে আমরা পরিষেবা শুরু করব না।”

    Mukesh Ambani

    স্টারলিঙ্ক এর প্রধান লক্ষ্য 2022 সালের ডিসেম্বর মাসের মধ্যে দু’লক্ষ ডিভাইসে ইন্সটল করা। ডিভাইস ইনস্টলেশন এর ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি প্রাধান্য দেওয়া হচ্ছে গ্রামীণ অঞ্চলগুলোকে। কারণ গ্রামীণ এলাকায় ইন্টারনেট পরিষেবা একবার পৌঁছে দিতে পারলেন বড় সংখ্যা গ্রাহক পাওয়া যাবে।

    এর ফলে নিঃসন্দেহ ভাবে দেশের অন্যান্য টেলিকম সংস্থা গুলির উপর চাপ বাড়বে। কিন্তু দেখার বিষয় এই যে কেন্দ্র ওই সংস্থাকে লাইসেন্স প্রদান করে কিনা। এখন সময়ের অপেক্ষা দেখা যাক কি হয়।