Skip to content

গাড়ি-বাইক চালকদের জন্য খুশির খবর, কেন্দ্রীয় পরিবহনমন্ত্রী করলেন বড় ঘোষণা

    কেন্দ্রীয় সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক মন্ত্রী (Road Transport and Highways of India) নীতিন গড়করি (Nitin Gadkari) গাড়ি-বাইক চালকদের জন্য বড়োসড়ো ঘোষণা করলেন। তিনি জানিয়েছেন, আগামী এক বছরের মধ্যেই পেট্রোল গাড়ির দাম ইলেকট্রনিক গাড়ির দামের সমান হবে। বৈদ্যুতিক গাড়ি চালু হওয়ার পর থেকে মানুষ অনেকটা সুবিধাভোগ করতে পেরেছেন। তাহলে আপনিও যদি এই গাড়ি কেনার পরিকল্পনে থাকেন তবে এই খবরটি আপনার কাছে খুবই সুখকর। চলুন এই সম্বন্ধে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

    Nitin Gadkari

    এই খবরটি খুবই স্বস্তিদায়ক গাড়ি ও বাইক আরোহীদের জন্য। কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর মতে সবুজ জ্বালানির সহিত বিভিন্ন প্রযুক্তির ফলে যে দ্রুত অগ্রগতি তা বৈদ্যুতিক অটোমোবাইলের দাম দ্রুত কমিয়ে আনবে। অর্থাৎ সাধারণ মানুষরা এতে বিশেষভাবে উপকৃত হবেন। আগামী দু বছরের মধ্যে পেট্রোল চালিত গাড়ির নাম  ইলেকট্রনিক গাড়ির দামের সমান হবে। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী মতে আগামীকাল এটি এক বড় বিপ্লব আনতে পারে।

    পাশাপাশি এই পরিবহন মন্ত্রী সাংসদদের হাইড্রোজেন প্রযুক্তি গ্রহণের আহ্বান জানান। সংসদ সদস্যদের নিজ নিজ এলাকার পয়োনিষ্কাশন জলকে একান্তভাবে সবুজ হাইড্রোজেনে রূপান্তরের উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান জানান তিনি। তার মতে হাইড্রোজেন খুব শীঘ্রই সস্তার জ্বালানি বিকল্প হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে।

    তিনি বলেছেন, দ্রুত কমবে আয়ন লিথিয়ান ব্যাটারির দাম। আমরা তৈরি করতে চলেছি জিঙ্ক-আয়ন, অ্যালুমিনিয়াম-আয়ন, এবং সোডিয়াম- আয়নের তৈরি ব্যাটারি। বছর দুইয়ের মধ্যেই ইলেকট্রিক স্কুটার, গাড়ি, অটোরিকশার দাম পেট্রোল চালিত স্কুটার, গাড়ি, অটোরিকশার (Electric Vehicles) সমান হবে।

    এছাড়াও কেন্দ্রীয় মন্ত্রী এর ফলে সাধারণ মানুষের কি কি উপকার হবে সে বিষয়েও জানিয়েছেন। তিনি উদাহরণ সমেত বলেছেন, আপনি যদি ১০০ টাকা পেট্রোল ব্যবহারে খরচ করেন, তাহলে বৈদ্যুতিক গাড়ি চালানোর খরচ হিসেবে ১০ টাকা যাবত খরচ রোজ কমে যাবে। অতএব বুঝতেই পারছেন কত সুবিধা লাভ করা সম্ভব।