Skip to content

বয়স ৬০ এর কাছাকাছি তবুও সৌন্দর্য এখনো অটুট! নীতা আম্বানির সৌন্দর্যের আসল রহস্য কি?

    img 20221120 083510

    গোটা এশিয়ায় সবচেয়ে ধনী ব্যবসায়ীদের মধ্যে
    রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রির (Reliace Industry)   কর্ণধার মুকেশ আম্বানি (Mukesh Ambani) ও তার স্ত্রী নীতা আম্বানির (Nita Ambani) নাম উল্লেখযোগ্য। ধনী ব্যবসায়ী হওয়ায় তাদের বিলাসবহুল জীবনযাপন অতি স্বাভাবিক বিষয়।

    গোটা আম্বানি পরিবারই বিলাসবহুল জীবনযাপনে অভ্যস্ত এবং সেটা নীতা আম্বানিকে দেখলে আরও ভালোভাবে বোঝা যায়। নিজেকে দুর্দান্তভাবে মেনটেন করে রেখেছেন তিনি। নিতা আম্বানির সৌন্দর্যের কাছে হার মানতে বাধ্য বলিউডের বড় বড় অভিনেত্রীরাও। সম্প্রতি তিনি ৫৯ তে পা দিয়েছেন। কিছু বছর পূর্বেই তার জন্মদিনের জন্য মুকেশ আম্বানি তাকে একটি বিলাসবহুল এরোপ্লেন উপহার দিয়েছিলেন। বলিউড অভিনেতা অভিনেত্রীদের মতো নীতা আম্বানিরও অনেক ভক্ত রয়েছে, যারা তার যাবতীয় বিষয়ের প্রতি বেশ আগ্রহী।

    Neeta Ambani

    অনেকেই জানতে চান নীতা আম্বানি তার এই বয়সেও নিজের সৌন্দর্যকে কিভাবে ধরে রাখেন। নেটিজেন্দের মধ্যে সবচেয়ে আলোচ্য বিষয় হলো মুকেশ পত্নী কি গয়না শাড়ি পরেন?  কি কসমেটিকস ব্যবহার করেন? কি জল পান করেন? কোন চা -এর ব্রান্ড ব্যবহার করেন? তবে এই বিষয়ে আসল বিউটি সিক্রেট কিন্তু কেউই জানেননা। তবে চলুন এই প্রতিবেদনে জেনে নেওয়া যাক কিভাবে নীতা আম্বানি নিজের সৌন্দর্যকে মেইনটেইন করেন।

    Photo of Neeta Ambani

    আমরা অনেকেই মনে করি নীতা আম্বানি নিজের সৌন্দর্যকে ধরে রাখার জন্য অনেক দামি দামি কসমেটিক ব্যবহার করেন। তবে এ কথা সম্পূর্ণ ভুল। বাস্তবে তিনি এমন কিছু ঘরোয়া পদ্ধতি ব্যবহার করেন যা তাকে এই বয়সেও গ্ল্যামারাস রাখে।

    Neeta Ambani photo

    তিনি মনে করেন সকলের মধ্যে সৌন্দর্য বর্তমান এবং এই সৌন্দর্য বিশেষত নিজেদের মধ্যে থাকে। তিনি নিয়ম অনুসারে প্রতিদিন ভোর পাঁচটায় ঘুম থেকে উঠে আবার রাত্রির এগারোটার মধ্যে ঘুমিয়েও পড়েন। এছাড়াও তিনি প্রতিদিন সকালে কিংবা সন্ধ্যায় যোগব্যায়াম করেন সাথে প্রচুর পরিমাণে ফল ও ফলের রস খান। তিনি দামি প্রোডাক্ট ব্যবহার করেন ঠিকই তবে সেগুলি ভেজাল মিশ্রিত নয়। বেশ কিছু ঘরোয়া পদ্ধতি অবলম্বন করে তিনি এই অধিক বয়সেও নিজেকে সুস্থ সবল রাখেন।

    See also  আর লম্বা লাইনে দাঁড়িয়ে কাটতে হবে না ট্রেনের টিকিট! যাত্রীদের সুবিধার্থে বড় পদক্ষেপ নিল ভারতীয় রেল