Skip to content

এই খেলোয়াড়দের মধ্যে হবে জোরদার লড়াই! রোমাঞ্চে ভরা এবারের এশিয়া কাপ

    এশিয়া কাপ ২০২২ (Asia Cup 2022) আইপিএলের দুই বন্ধু শ্রীলঙ্কার ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা (Wanindu Hasaranga) এবং ভারতের বিরাট কোহলি (Virat Kohli) মুখোমুখি হবেন এশিয়া কাপে।  দুই খেলোয়াড়ই আইপিএল দল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের হয়ে খেলেন (Royal Challengers Bangalore)।  হাসরাঙ্গা ২০২২ সালের আইপিএলেও সবচেয়ে ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের আউট করেছিলেন।

    Asia Cup trophy

    সংযুক্ত আরব আমিরাতে (UAE) ২৭শে আগস্ট শুরু হতে চলেছে এশিয়া কাপ টি-টোয়েন্টির (T20)  জন্য সব দলই প্রস্তুতি নিচ্ছে।  ভারত বনাম পাকিস্তানের ম্যাচটি শুধু টুর্নামেন্টের উত্তেজনাই বাড়াবে না একই সাথে কিছু খেলোয়াড়ের উত্তেজনাও দ্বিগুণ হবে।  আবার কিছু খেলোয়াড় আছে যারা আবার একে অপরের মুখোমুখি হতে চায়।  এই খেলোয়াড়দের মধ্যে ভারত, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা ও আফগানিস্তানের খেলোয়াড় রয়েছে।  এক নজরে দেখে নিন এই খেলোয়াড়দের সংঘর্ষ ….

    রশিদ খানের (Rashid Khan) সবগুলো টি-টোয়েন্টি (T20) আন্তর্জাতিক ম্যাচে বাবর আজম ৪৮ বল খেলেছেন এবং পাঁচটি আউট হলেও তিনি সেগুলিতে মাত্র ৫৯ রান করতে সক্ষম হয়েছেন।

    Rashid Khan Babar Azam

    বাবর আজম (Babar Azam)  ফাস্ট বোলারদের (Fast bowler) মোকাবিলা করেন, কিন্তু স্পিন বোলারদের (Spin Bowler) সামনে বিশেষ করে লেগ স্পিনারদের (Leg Spinner) সামনে তিনি সমস্যায় পড়েন। বাবর (Babar Azam) বেশিরভাগ লেগ স্পিনারদের দ্বারা বোল্ড হয়।  বাবরকে থামানোর জন্য এই পরিকল্পনা করা যেতে পারে, তবে তা কতটা কার্যকর হবে তা নির্ভর করবে সেদিনের ম্যাচের ওপর।  কিন্তু আফগানিস্তানের লেগ-স্পিনার রশিদ খান (Leg Spinner Rashid Khan) যখন বাবরের সামনে আসেন, তখন বিচলিত হয়ে পড়েন পাকিস্তানি এই ব্যাটসম্যান।  এই টুর্নামেন্টে এই দুই খেলোয়াড়ের লড়াই এখন দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করে আছে।

    Hardik Pandya Mushfiqur Rahim

    হার্দিক পান্ডে (Hardik Pandya) বনাম মুশফিকুর রহিম (Mushfiqur Rahim) এই টুর্নামেন্টে আরেকটি আকর্ষণীয় মুখোমুখি হবে,  যখন ভারত ও বাংলাদেশের দল একে অপরের মুখোমুখি হবে।  এই ম্যাচে সবার নজর থাকবে ভারতীয় অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়া (All Rouder Hardik Pandya) ও বাংলাদেশের উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিমের (Mushfiqur Rahim) দিকে।  ক্রিকেট ভক্তরা দীর্ঘ সময় ধরে দুজনের মধ্যে মুখোমুখি হতে পারেনি এবং এই টুর্নামেন্টে তাদের অপেক্ষার অবসান ঘটবে।  তাদের শেষ মুখোমুখি হয়েছিল ২৩ মার্চ ২০১৬ সালে টি-টোয়েন্টি (T20) বিশ্বকাপে।  ভারতকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে দিতে প্রস্তুত বাংলাদেশ দল।

    ছয় বলেই জিতেছে, বাংলাদেশ এই রান দরকার ছিল। পরপর দুটি চার মেরে বাতাসে লাফিয়ে নিজেকে উদযাপন করেন মুশফিক।  এরপর মুশফিককে আউট করে বাংলাদেশের জয়ের আশা ভেঙে দেন হার্দিক।  এই ম্যাচে জিতেছে ভারতীয় দল (Indian Team)।  হার্দিক হয়তো সেই সময়ে প্রথমবারের মতো টি-টোয়েন্টির দ্বিতীয় ইনিংসের শেষ ওভারটি (T20 Second innings last over) বলছিলেন, কিন্তু তিনি এখন অনেক বেশি স্মার্ট এবং ভালো বোলার হয়ে উঠেছেন।

    Kohli vs Hasranga

    কোহলি বনাম হাসরাঙ্গা (Kohli vs Hasranga) – নম্বর গেম ১১৬ উইকেট ওয়ানিন্দু হাসরাঙ্গা ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টিতে ৮৬ উইকেট নিয়ে নিয়েছেন দুই আইপিএল বন্ধু শ্রীলঙ্কার ওয়ানিন্দু হাসরাঙ্গা এবং ভারতের বিরাট কোহলি এশিয়া কাপে একে অপরের মুখোমুখি হবেন। দুই খেলোয়াড়ই আইপিএল দল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের হয়ে খেলেন।  ২০২২ আইপিএলেও, হাসরাঙ্গা সবচেয়ে ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের আউট করেছিলেন এবং দলের পক্ষে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারী ছিলেন।

    আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে, হাসরাঙ্গা কোহলির কাছে মাত্র ছয়টি ডেলিভারি করেছেন এবং দুটি আন্তর্জাতিক মঞ্চে মুখোমুখি হয়েছে।

    Vanuka Rajapakse Shadab Khan

    শ্রীলঙ্কান খেলোয়াড় ভানুকা রাজাপাকসে (Vanuka Rajapakse)  একজন খুব ভালো রিস্ট স্পিন হিটার (wrist pin hiter) যা পাকিস্তানের শাদাব খানের (Shadab Khan) জন্য খারাপ খবর।  এই দুজন টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে তিনবার মুখোমুখি হয়েছেন (These two have met three times in T20 cricket)।  এই সময়ে রাজাপাকসে ২৯ বলে মোট ৪৫ রান করেছেন।  লিগ পর্বে শ্রীলঙ্কা পাকিস্তানের বিপক্ষে কোনো ম্যাচ খেলবে না কিন্তু পরবর্তী পর্যায়ে তারা মিলিত হলে মধ্য ওভারের ম্যাচটি গুরুত্বপূর্ণ হতে পারে (Sri Lanka will not play a match against Pakistan in the league stage but the middle overs match could be crucial if they meet in the later stages)।